ছোট্ট লবঙ্গের এতো গুণ!

0

লাইফ স্টাইল ডেস্ক:

আমরা রান্না করা খাবারের স্বাদ বাড়াতে গরম মশলার ব্যবহার করি। সুন্দর গন্ধযুক্ত এই উপাদেয় মশলার মধ্যে খুবই ঝাঁঝালো হচ্ছে লবঙ্গ। এটি রান্নায় যেমন স্বাদ বাড়িয়ে দেয়, তেমনি বিভিন্ন গুণেভরা এই ছোট্ট সুন্দর মশলাটি।

আসুন আজ জেনে নেই লবঙ্গের গুণাগুণ:

* লবঙ্গ রুচি ও ক্ষুধা বাড়ায় * কফ ও কাশি দূর করে * কৃমি জাতীয় রোগ প্রতিরোধ করে * এটা প’চনরোধক * শরীরে উদ্দীপক হিসেবে কাজ করে * গলার সং’ক্রমণ রোধ করে * যৌ’ন রোগে খুবই উপকারি * দাঁতের ব্যথা সারাতে দারুণ কার্যকর * বমিভাব কমায় * রক্তে সুগারের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখে * ক্রিয়েটিভিটি এবং সেন্ট্রাল ফোকাস বাড়ায় * লবঙ্গ তেলে রয়েছে ব্যকটেরিয়া ধ্বং’সের ক্ষমতা * এসিডিটি কমাতে খেতে পারেন নিয়মিত * লবঙ্গ পিষে মিশ্রি বা মধুর সঙ্গে খেলে রক্তে শ্বেত রক্তকণিকার পরিমাণ বাড়ে * এটা প্রাকৃতিক অ্যান্টিবায়োটিক হিসেবে কাজ করে। হাঁপানির মাত্রা কমায় * চন্দন গুঁড়ার সঙ্গে লবঙ্গ পিষে লাগালে ত্বকের যে কোনো সমস্যা দূর হয়ে যায়।

আমাদের কোন কাজে কতটা ক্যালরি খরচ হয়, জানেন?

আমাদের যাদের ওজন স্বাভাবিকের তুলনায় বেশি তারা প্রায়ই চেষ্টা করি বাড়তি ওজন কমিয়ে স্লিম আর ফিট ফিগার পেতে। কিন্তু আমরা প্রতদিন খাবারের মাধ্যমে যে পরিমাণ ক্যালরি গ্রহণ করি, তা কীভাবে কোন কাজে কতটুকু ব্যয় হয় সে হিসেব না জানার ফলে অনেক সময়ই আমাদের কাঙ্ক্ষিত ফিগার ধরা ছোঁয়ার বাইরেই থেকে যায়।‍

শরীরের চাহিদা অনুযায়ী দেহকে সঠিকভাবে চালানোর জন্য খাদ্যশক্তির যেমন প্রয়োজন, তেমনি ক্যালরি ব্যয় করে বাড়তি মেদ জমা থেকেও সচেতন হতে হয়। আমাদের দৈনন্দিন কাজের মাধ্যমেই ক্যালরি খরচ হয়।

আসুন জেনে নেই কোন কাজে প্রতিঘণ্টায় কতো ক্যালরি ব্যয় হয়:

ঘুমের সময় ৪৬, টিভি দেখায় ৫৬, কম্পিউটারে কাজ করে ১০২, পরিবারের হালকা কাজ ৯৫, লাইনে দাঁড়িয়ে ১০০, বাচ্চাদের সঙ্গে খেলা করলে ক্ষয় হয় ১২০,
ড্রাইভিং ১২০, শপিং ১৩৫, খাওয়ার সময় ১৪০, রান্না করতে করতে ব্যয় হয় ১৮৬, হাঁটা ২৩০, বাগান করা ৩০০, হাল্কা যোগব্যায়াম ৩০০, নৃত্য ২২৪,

ভার উত্তলোন ২২৪, ভলিবল ৩৪০, বোলিং ১৪৫, বেসবল ৩৬৫, হাঁটা (গতি প্রতি ঘণ্টায় ৪.৫ মাইল) ৩৭২, টেনিস ৫২০, সাঁতার ৫২০, সাইকেল চালানো (গতি প্রতি ঘণ্টায় ২০ মাইল) ১২০০, দড়ি লাফানো ৯০০, দৌঁড়ানো (গতি প্রতি ঘণ্টায় ৭.৫ মাইল) ৯৪০ [সূত্র: হার্ভার্ড হার্ট লেটার]

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।