বাংলাদেশে তৈরী বিডি-১৪ মেশিনগানের স্পেসিফিকেশন

0

ফিচার ডেস্ক:

চীনের বিখ্যাত অ’স্ত্র নির্মাতা প্রতিষ্ঠান নরিনকো কোম্পানির তৈরী টাইপ-৮০ জিপিজি হলো মূলতঃ রাশান পিকেএম এর একটি লাইসেন্সড সংস্করণ। চীনের কাছ থেকে প্রযুক্তি ক্রয় করে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী একে বিডি-১৪ হিসাবে তৈরী করে নিজস্ব প্রয়োজন অনুসারে।

সোভিয়েত পিকেএম, চায়নিজ টাইপ-৮০ আর বাংলার বিডি-১৪ নাম আলাদা হলেও জিনিস, কার্যক্ষমতা প্রায় একই। আসুন জেনে নেয়া যাক এই জেনারেল পারপোজ মেশিনগানটির বৈশিষ্ট্য:-

☼ ১৯৮৩ সালে পিএলএতে সার্ভিসে আসা এই মেশিনগান ১৯৮০ সালে লেফটেন্যান্ট জেনারেল মিখাইল তিমোফিয়েভিচ কালাশনিকভ* ডিজাইন করেন সোভিয়েত বাহিনীর জন্য।
☼ ১২.৬ কেজি ওজনের এই মেশিনগানটি লম্বায় ৪৬.৯ ইঞ্চি আর ব্যারেল লম্বায় ২৫.৯ ইঞ্চি।
☼ গ্যাস অপারেটেড ওপেন বোল্ট অ্যাকশনের এই মেশিনগান ৭.৬২✘৫৪ মি.মি আকারের অ্যাম্যুনিশন ব্যবহার করে।

☼ এটি আয়রন সাইটে ১০০০-১৫০০ মিটার ও আলদা স্কোপ দিয়ে ২০০০+ মিটার পর্যন্ত মিনিটে ৭৫০-৮০০ রাউন্ড ফায়ার করতে সক্ষম। এর মাজল ভেলোসিটি হলো ৮৪০ মি/সে.।

☼ এটি মূলত বেল্ট ফেড সিস্টেম ব্যবহার করে। ১০০/২০০/২৫০ রাউন্ডের স্ট্যান্ডার্ড বেল্ট ব্যবহার করা হয়।
☼ এই মেশিনগান ট্রাইপড অথবা বাইপড-এ বহন করা হয়। তবে আলাদা ভাবে ভেহিকেল মাউন্টও সেট করা যায়।
☼ এর টাইপ-৮৬ সংস্করণটি বিশেষভাবে তৈরী করা হয় ব্যাটল ট্যাংকের সেকেন্ডারী ওয়েপন হিসাবে ব্যবহার করার জন্য।

বাংলাদেশের সামরিক ও আধাসামরিক বাহিনীগুলো এটি ব্যাপক হারে ব্যবহার করে। বিগত কয়েকমাস আগে বাংলাদেশ চীন থেকে ১৫০টি জিপিজির অর্ডার করেছে। যার মধ্যে ৭৫টি ইতিমধ্যে ডেলিভারি হয়েছে। অবশিষ্টগুলোও শীঘ্রই আসবে।

* [লেফটেন্যান্ট জেনারেল মিখাইল তিমোফিয়েভিচ কালাশনিকভ ছিলেন রাশিয়ার (সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়ন) একজন সামরিক কর্মকর্তা ও অ’স্ত্রের নকশাবিদ। যিনি বিখ্যাত একে-৪৭ রাইফেল তৈরী করে বিশ্বের যু’দ্ধবিদ্যার ইতিহাস পরিবর্তন করে দিয়েছিলেন। তিনিই রাশিয়ার প্রথম ব্যক্তি, যাকে হিরো অব দ্য রাশান ফেডারেশন ও একসাথে দু’বার “হিরো অব সোশ্যালিস্ট লেবার” উপাধি দেওয়া হয়। এছাড়াও তিনি অর্ডার অব সেন্ট এন্ড্রু, লেনিন প্রাইজ, স্তালিন প্রাইজ, স্টেট প্রাইজ অব রাশান ফেডারেশন, অর্ডার অব মেরিট ফর দ্য ফাদারল্যান্ড ক্লাস-২ পদকে ভূষিত হন।]

তথ্যসূত্র: বাংলাদেশ মিলিটারি অ্যাফেয়ার্স

Spread the love
  • 113
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    113
    Shares

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।