ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় পা কর্তন করে আনন্দ মিছিল, মূলহোতাসহ গ্রেপ্তার ৪৩

0

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার কৃষ্ণনগর ইউনিয়নের থানাকান্দি গ্রামে রবিবার (১২ এপ্রিল) দুই পক্ষের সংঘ’র্ষ এবং একজনের পা কর্তন করে আনন্দ মিছিল করার ঘটনা ঘটে। যা মধ্যযুগীয় ব’র্বরতাকেও হার মানায়। হাজারো মানুষের এই ‘আনন্দ মিছিল’ এর দৃশ্য শিউরে ওঠে মানুষ। দোষীদের দ্রুত গ্রেপ্তার ও বিচারের দাবি জানান তারা।

প্রশাসনের ত্বরিৎ পদক্ষেপে এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত ইউপি চেয়ারম্যানসহ ২ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ঘটনায় জড়িত হিসেবে এ পর্যন্ত ৪৩ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। ব্রাহ্মণবাড়িয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আলমগীর হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

স্থানীয়রা জানান, দীর্ঘদিন ধরে কৃষ্ণনগর ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি জিল্লুর রহমানের সঙ্গে একই ইউনিয়নের থানাকান্দি গ্রামের আওয়ামী লীগ নেতা আবু কাউসার মোল্লার বিরো’ধ চলছে। যার জেরে গত রবিবার উভয়পক্ষের হাজারো সমর্থক দেশীয় অ’স্ত্র নিয়ে সংঘ’র্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সময় ধারালো অ’স্ত্র দিয়ে জিল্লুর রহমানের সমর্থক মোবারক মিয়ার (৪৫) এক পা কর্তন করে নেয়। তারপর সেটি নিয়ে নেতার নামে স্লোগান দিয়ে গ্রামে আনন্দ মিছিল করে আবু কাউসার মোল্লার সমর্থকরা।

এ দৃশ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফেসবুকসহ বিভিন্ন প্ল্যাটফরমে ছড়িয়ে পড়লে চারদিকে সমালোচনা শুরু হয়। এতে নড়েচড়ে বসে স্থানীয় প্রশাসন ও আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা। পরে পৃথক স্থান থেকে ভোররাতে দুই পক্ষের দুই নেতাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আলমগীর হোসেন জানান, এ ঘটনার মূলহোতা কৃষ্ণনগর ইউপি চেয়ারম্যান জিল্লুর রহমানকে সোমবার ভোরে রাজধানীর কলাবাগান থেকে ও থানাকান্দি গ্রামের কাউছার মোল্লাকে গভীর রাতে আশুগঞ্জের বায়েক গ্রাম থেকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

এতে জড়িত থাকার দায়ে ৪৩ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ ঘটনায় দায়ের হওয়া মামলায় তাদের কঠোর আইনি পরিণতি ভোগ করতে হবে বলে মন্তব্য করেন পুলিশ সুপার।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।