ঘরে বসে করোনা পরীক্ষার পদ্ধতি জানালেন ডা. দেবী শেঠি

0

স্বাস্থ্য বার্তা ডেস্ক:

করোনা ভাইরাস নিয়ে আত’ঙ্কের মধ্যে ভারতের বিশিষ্ট হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. দেবী শেঠি এক অডিও বার্তায় দিয়েছেন কয়েকটি পরামর্শ। ঘরে বসেই করোনা পরিস্থিতি পরীক্ষা নিয়ে তার অডিও ক্লিপ ভাইরাল হয়েছে।

এ চিকিৎসক জানিয়েছেন, যদি কারো ফ্লু বা সর্দি থাকে, প্রথমে নিজেকে আইসোলেট করে লক্ষণ ভালো করে পর্যবেক্ষণ করতে হবে। ১ম দিন শুধু ক্লান্তি আসবে। ৩য় দিন হালকা জ্বর অনুভব হবে। সঙ্গে কাশি ও গলায় সমস্যা হবে। ৫ম দিন পর্যন্ত মাথা ব্যথা। পেটের সমস্যাও হতে পারে। ৬ষ্ঠ বা ৭ম দিনে শরীরে ব্যথা বাড়বে তবে মাথা ব্যথা কমতে থাকবে। তবে ডায়রিয়ার লক্ষণ দেখা দিতে পারে। পেটের সমস্যা থেকে যাবে।

এবার খুবই গুরুত্বপূর্ণ বিষয়- ৮ম ও ৯ম দিনে সব লক্ষণই চলে যাবে। তবে সর্দি বাড়তে থাকে। এর অর্থ আপনার শরীরে রোগ প্রতি’রোধ ক্ষমতা বেড়ে গেছে। যার ফলে আপনার আর করোনা আশ’ঙ্কার প্রয়োজন নেই।

ডা. দেবী শেঠি বলেন, এমন সময়ে আপনার করোনা পরীক্ষার আর প্রয়োজন নেই। কারণ আপনার শরীরে অ্যান্টিবডি তৈরি হয়ে গেছে, যা রোগকে দূরে সরিয়ে দিচ্ছে। যদি ৮ম বা ৯ম দিনে আপনার শরীর আরো খারাপ হয়, করোনা হেল্পলাইনে ফোন করে অবশ্যই পরীক্ষা করিয়ে নিন।

তিনি স্মরণ করিয়ে দেন, করোনা ভাইরাস পরীক্ষার কিট সীমিত। সারাবিশ্বজুড়ে এর চাহিদা থাকায় সরবরাহও কম। তাই জ্বর হওয়ার ২য় বা ৩য় দিনেই সবারই করোনা পরীক্ষার প্রয়োজন নেই। এতে আরো বড় সমস্যা হবে।

ডা. দেবী শেঠি আরো বলেন, আমার পরামর্শ হলো, জ্বর হলেই করোনার পরীক্ষা নয়। আগে অপেক্ষা করে উপসর্গ পর্যবেক্ষণ করুন। খারাপ হলে নিজেকে পরীক্ষা করিয়ে নিন।

এই প্রথিতযশা চিকিৎসক আরও বলেন, করোনা রোগীদের সংস্পর্শে এলে বা বিদেশ থেকে আসা যাত্রীদের অবশ্যই সেল্ফ কোয়ারান্টাইনে থাকা উচিৎ। নিজের সচেতনতাই পারে এই মহামা’রী থেকে দেশ ও জনগণকে রক্ষা করতে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।