বাঙালি তরুণ অরিঞ্জয়ের হাত ধরে করোনামুক্তির স্বপ্ন দেখছে বিশ্ব!

0

বিজ্ঞান ও তথ্য প্রযুক্তি ডেস্ক:

করোনা ভাইরাস এরই মধ্যে ছড়িয়েছে ১৩০টি দেশ ও অঞ্চলে। ভাইরাসটিকে ‘বৈশ্বিক ম’হামারি’ ঘোষণা দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। এ পর্যন্ত মৃ’তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৬ হাজারেরও বেশি। আক্রা’ন্তের সংখ্যা প্রায় দেড় লাখ। প্রতিষেধক আবিষ্কারে হিমশিম খাচ্ছেন বিশ্বের বাঘা বাঘা বিজ্ঞানীরা। এই যখন পরিস্থিতি, তখন এক বাঙালি তরুণের হাত ধরে করোনা থেকে মুক্তির স্বপ্ন দেখছে বিশ্ব।

করোনার প্রতিষেধক আবিষ্কারে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন কানাডার এক দল গবেষক। করোনা ভাইরাসকে ঠেকাতে একধাপ এগিয়েছে কানাডার এই গবেষকদের দল। যে দলে রয়েছেন অরিঞ্জয় বন্দ্যোপাধ্যায় নামে একজন বাঙালিও।

করোনা ঠেকাতে কতটা তৎপর তারা, তাদের প্রতিষেধকটা কী? এ প্রসঙ্গে অরিঞ্জয় বন্দ্যোপাধ্যায়ের বক্তব্য, তারা কিছুটা হলেও এই ভাইরাসকে ঠেকানোর উপায় খুঁজে পেয়েছেন। যেটা দিয়ে বিশ্বজুড়ে ঠেকিয়ে দেয়া যাবে এই ভাইরাসকে।

সূত্রের খবর, কানাডার ৩টি বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা করোনার ভ্যাক্সিন আবিষ্কারের বিষয়ে বেশ আশাবাদী। তাদের গবেষণা গোটা বিশ্বকে পথ দেখাবে। অরিঞ্জয় সম্প্রতি তার গবেষকদলের সঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি পোস্ট করে জানিয়েছেন তাদের গবেষেণায় একধাপ সাফল্যের কথা।

অরিঞ্জয়ের কথায়, করোনার কারণে বিশ্বজুড়ে যা হচ্ছে তা অত্যন্ত দুঃখজনক। তবে এটি ঠেকাতে ভূমিকা নিতে পারছি, এটাও গর্বের।’ গবেষক অরিঞ্জয় বন্দ্যোপাধ্যায়ের দাবি, তাদের দল ইতিমধ্যেই সার্স কোভিড-২ ভাইরাসকে আলাদা করতে পেরেছেন। এই সফলতার মহা-মূল্যবান সূত্র বাকি গবেষকদেরও দিতে চান তারা। এতে সকলের মিলিত প্রয়াসে এই ভাইরাসের প্রতিষেধক আবিষ্কার করার কাজ আরও সহজ হবে বলে মনে করছেন তিনি।

কে এই বাঙালি গবেষক অরিঞ্জয় বন্দ্যোপাধ্যায়?

ভারতীয় বংশোদ্ভূত কানাডার নাগরিক তিনি। টরোন্টোর ম্যাকমাস্টার বিশ্ববিদ্যালয়ের সংক্রা’মক রোগ বিভাগের গবেষক অরিঞ্জয়। যে বিভাগে করোনা ভাইরাসের মতো ম’হামারি বা যে কোনও রকম সংক্রা’মক রোগ এবং বাদুড় থেকে সংক্র’মিত রোগ নিয়ে গবেষণা করা হয়।

জানা গিয়েছে, এই গবেষকের দল কোভিড-১৯-এর চরিত্র বিশ্লেষণ করতে সমর্থ হয়েছেন। ফলে, করোনাকে বাগে আনতে খুব দ্রুতই সমর্থ হবেন এই গবেষকদের দল, এমনটাই মনে করছেন গবেষকরা। তাদের হাত ধরেই করোনার প্রতিষেধক তৈরি করা যাবে বলে মনে করা হচ্ছে। ২ জন রোগীর লালারস ও রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে কিছুটা হলেও করোনাকে ঠেকানোর দাওয়াই খুঁজে পেয়েছেন কানাডার এই গবেষকদল।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।