শ’য়তানই আমাকে দিয়ে ১২ ছাত্রীকে ধ-র্ষণ করায়: অধ্যক্ষ, ইমাম মাওলানা আল আমিন

0

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি:

৩য় থেকে ৫ম শ্রেণির ১২ জনেরও অধিক ছাত্রীকে ধ-র্ষণের দায়ে এক মাদ্রাসা অধ্যক্ষ ও ইমামকে আটক করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। আটককৃত মাদ্রাসা শিক্ষকের দাবি- শ’য়তানই তাকে দিয়ে এসব কাজ করিয়েছে!

আজ ৪ জুন, বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় ফতুল্লার মাহমুদপুর এলাকার বাইতুল হুদা ক্যাডেট মাদ্রাসা থেকে তাকে আটক করা হয়। এ সময় তার মোবাইল ও কম্পিউটার থেকে প্রচুর নোং-রা ভিডিও উদ্ধার করে র‌্যাব।

আটককৃত অধ্যক্ষের নাম মাওলানা মো. আল আমিন। তিনি কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার ভূঁইয়া পাড়া এলাকার রেনু মিয়ার ছেলে। আল আমিন বাইতুল হুদা ক্যাডেট মাদ্রাসার প্রতিষ্ঠাতা ও পরিচালক। পাশাপাশি তিনি ফতুল্লার একটি মসজিদের ইমামের দায়িত্বও পালন করেন।

র‌্যাব কর্মকর্তা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আলেপ উদ্দিন জানান, অক্সফোর্ড স্কুলের ঘটনাটি টিভিতে দেখালে এই মাদ্রাসার ৩য় শ্রেণির এক ছাত্রী তার মাকে বলে- ‘আমাদের আল আমিন হুজু-রও তো আমাদের সাথে এসব করে’। শিশুটি তার মায়ের কাছে ঘটনাগুলো জানায়।

পরে শিশুটির মা ঘটনাটি র‌্যাবকে জানালে ওই মেয়ের জবানব-ন্দি নিয়ে তদন্ত শুরু করে র‌্যাব। তদন্তে জানা যায়, শুধু ওই শিক্ষার্থীই নয়, ২০১৮ সাল থেকে অর্থাৎ গত ১ বছর ধরে মাদ্রাসার ৩য় থেকে ৫ম শ্রেণিতে পড়ুয়া পর্যন্ত অন্তত ১২টি শিশুকে ধ-র্ষণ করে আল আমিন।

র‌্যাব কর্মকর্তা আরো জানান, গ্রেপ্তারকৃত অধ্যক্ষ আল আমিন প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সব ঘটনা স্বীকার করেছে। সে তার পরিবারসহ মাদ্রাসার ভেতরেই থাকত। স্ত্রী কোথাও গেলে বা মাদ্রাসা ছুটির পর সুযোগ বুঝে শিক্ষার্থীদের সাথে এসব করত। তার দাবি, সে আগে এমন ছিল না, শ’য়তানই তাকে দিয়ে এসব করিয়েছে। তার নিজের কোনো দোষ নাই।

এ ঘটনায় তার বিরু-দ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। এদিকে এ ঘটনা জানতে পেরে অধ্যক্ষের সাজা ও মাদ্রাসা বন্ধের দাবিতে বিক্ষো-ভ করেছেন এলাকাবাসী।

দুপুরে ঘট-নাস্থল পরিদর্শন করেন র‌্যাব-১১ এর অধিনায়ক লে. কর্ণেল কাজী শামসের উদ্দিন, ফতুল্লা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আসলাম ও পরিদর্শক আব্দুল আজিজ।

সংবাদ সম্মেলনে লে. কর্ণেল কাজী শামসের উদ্দিন বলেন, ঘট-নার প্রমাণস্বরূপ আল আমিনের মোবাইল ও কম্পিউটারে প্রচুর নোং-রা ভিডিও পেয়েছি। কিছু ভিডিও সে নিজেই বানিয়েছে। পড়তে আসা ছাত্রীদের ছবি ভিডিওতে সংযুক্ত করে সেগুলো দেখিয়ে বারবার ধ-র্ষণ করত।

Spread the love
  • 35.3K
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    35.3K
    Shares

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।