ইসলাম অবমাননাকারী আসাদ পংপং-এর শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন

0

প্রবাস ডেস্ক:

মালয়েশিয়া প্রবাসী আসাদ ওরফে আসাদ পংপং কর্তৃক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ইসলাম অবমাননা ও বিভিন্ন সময়ে বিশিষ্ঠ ব্যাক্তিদের নিয়ে অপপ্রচারের অবমাননার প্রতিবাদে এবং শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

গত রবিবার বিকালে কুয়ালামাপুরের তিতিয়াংসা মসজিদের সামনে দেশটিতে ববসারত বাংলাদেশিদের সংগঠন ‘মালয়েশিয়া প্রবাসী বাংলাদেশী’র আয়োজনে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, ইমন সাঈদ, জাহেদুল ইসলাম, মোজাম্মেল হক প্রমুখ। এ সময় বক্তারা বলেন, মালয়েশিয়া প্রবাসী বিতর্কিত আসাদ পংপং বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন গন্যমান্য ব্যাক্তি বর্গকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অপপ্রচার ও মানহানিকর বক্তব্য প্রদান করে মানুষকে বিভ্রান্ত করছে। পবিত্র কোরআন শরীফ ও ধর্মীয় বিশ্বাস নিয়ে অবমাননাকর বক্তব্য দিচ্ছে। সর্বশেষ সে বিতর্কিত ব্যাক্তি সিফাত উল্লাহ সেফুদাকে উস্কানি দেওয়ার পরে সেফুদা কোরআন শরীফ অবমাননা করে মুসলমানদের মধ্যে তীব্র ক্ষোভ সৃষ্টি করেছে।

এসময় বক্তারা আসাদ পংপং এর অপর্মের জন্যে তাকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি প্রদানের দাবি জানান।

মানববন্ধনে আরো উপস্থিত ছিলেন, মোঃ সাদ্দাম, মোঃ সায়েম, হাফেজ মোঃ কামাল হোসেন, মোঃ তারেক, মোঃ নয়ন, মোঃ কুতুব উদ্দীন, মোঃ শওকত, মোঃ হামিদ, মোঃ রফিক, মোঃ শাহিন, মো:আলী, মোঃ নিজাম উদ্দীনসহ অনেক প্রবাসী বাংলাদেশী।

ইফতারের পর দ. আফ্রিকায় তিন বাংলাদেশীকে গুলি!

দক্ষিণ আফ্রিকার থেম্বিসায় ফম্লং নামক একটি এলাকায় বাংলাদেশি ব্যবসায়ী নজরুল ইসলামের দোকানে ৩ জন গুলিবিদ্ধ হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। গত শুক্রবার, ১০ মে সন্ধ্যা ৬টায় ইফতারের পর দোকানে একদল ডাকাত প্রবেশ করে। ডাকাতি করে যাওয়ার সময় তাজুরুল ইসলাম, মো. মহিউদ্দিন, মো. খাইরুলসহ ৩ জনের পায়ে গুলি করে পালিয়ে যায় ডাকাত দল।

স্থানীয় বাংলাদেশিরা খবর পেয়ে তাদেরকে নিকটস্থ হাসপাতালে নিয়ে যায়। বর্তমানে তারা থেম্বিসা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। কর্তব্যরত চিকিৎসক বলেছেন, তারা এখনো আশংকামুক্ নন। তাদের পায়ে অস্ত্রোপচার করা হয়েছে।

তাজুরুল ইসলাম এবং মো. মহিউদ্দিন আপন দুইভাই। তাদের দেশের বাড়ি দোরস খোলা কুমিল্লা এবং খাইরুলের দেশের বাড়ি মাওরাবাড়ি, কুমিল্লা।

Spread the love
  • 41
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    41
    Shares

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।