দরুদ শুনে মায়ের সামনেই শিশুর গলা কেটে হত্যা করে মদিনার ট্যাক্সিচালক!

0

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

সৌদি আরবের পবিত্র মদিনায় মহানবী হজরত মুহম্মদ (সা.)-এর রওজা মোবারক জিয়ারতে গিয়ে নির্মমভাবে নিহত হয়েছে শিয়া সম্প্রদায়ের ৬ বছর বয়সী শিশু জাকারিয়া জাবের। তার মায়ের মুখে দরুদ শরিফ শোনার পর গাড়ির কাঁচ ভেঙে তা দিয়ে মায়ের সামনেই শিশুটিকে জবাই করে নির্মমভাবে হত্যা করেছে এক ট্যাক্সিচালক।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে বলা হচ্ছে, মাজহাবগত বিদ্বেষের কারণেই এ পরিণতি হয়েছে শিশুটির। এরই মধ্যে শিশুটির জানাজা সম্পন্ন হয়েছে।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার রাতে শিশুটিকে নিয়ে তার মা একটি ট্যাক্সিতে করে মদিনায় হজরত মুহম্মদ (সা.)-এর রওজা মোবারকের দিকে যাচ্ছিলেন। ট্যাক্সিতে উঠে তিনি দরুদ শরিফ পাঠ করতেই ট্যাক্সিচালক তাকে জিজ্ঞেস করেন- তিনি শিয়া সম্প্রদায়ের কিনা? উত্তরে ওই নারী বলেন- হ্যাঁ।

এ সময় ট্যাক্সি থামিয়ে চালক নিচে নেমে আসেন। এরপর ট্যাক্সির ভেতর থেকে শিশুকে নামিয়ে ট্যাক্সির কাঁচ ভেঙে তা দিয়ে মায়ের সামনেই শিশুটিকে গলা কেটে হত্যা করেন। মা এই দৃশ্য দেখে সেখানেই জ্ঞান হারান।

মদিনায় এমন হত্যাকাণ্ডে সবাই বলছেন, কতটা উগ্র ও হিংস্র হলে নিষ্পাপ শিশুকে এত নির্মমভাবে হত্যা করতে পারে একজন মানুষ।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, যে ব্যক্তি একজন নিষ্পাপ শিশুকে হত্যা করতে পেরেছে, সে নির্দ্বিধায় গোটা মুসলিম সমাজ- এমনকি গোটা পৃথিবীকেও ধ্বংস করে দিতে পারবে।

মসজিদুল আকসার খুতবায় আরবদেশগুলোর সমালোচনা

মুসলমানদের প্রথম কেবলা ও ফিলিস্তিনিদের অধিকার বিষয়ে আরবদেশগুলোর ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন মসজিদুল আকসার খতিব ও ফিলিস্তিনের গ্রান্ড মুফতি শাইখ মোহাম্মদ হুসাইন। গত শুক্রবার মসজিদুল আকসার জুমার খুতবায় তিনি আরবদেশগুলোর কঠিন সমালোচনা করেন।

আল আকসা বিষয়ে সোচ্চার নয় এমন আরব দেশগুলোর দূতাবাস সরিয়ে দিতে ফিলিস্তিন কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ করেন ফিলিস্তিনের গ্র্যান্ড মুফতি।

শাইখ মোহাম্মদ হুসাইন আরও বলেন, যে আরবদেশগুলো ফিলিস্তিনের স্বাধীনতার ব্যাপারে সহযোগিতা করে না এবং মুসলমানদের প্রথম কেবলার পূর্ণনিয়ন্ত্রণে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে কোনো ভূমিকা রাখে না, তাদের বয়কট করতে হবে। আল আকসা ও ফিলিস্তিন বিষয়ে আন্তর্জাতিক সমাধান শুধু মুখের কথায় হবে না, এর জন্য কার্যকরী পদক্ষেপ নিতে হবে। অথচ আরবদেশগুলো ফিলিস্তিন বিষয়ে শুধু মৌখিক দাবি করে। বাস্তব কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করে না।

দি প্যালেস্টাইন ইরফরমেশন সেন্টারের তথ্যমতে, আল আকসা মসজিদের গ্রান্ড ইমাম জুমাপূর্ব আলোচনায় বলেন, মুসলমানদের প্রথম কেবলাসহ ফিলিস্তিনের স্বাধীনতা সংগ্রামে ব্যর্থতার সব দায়ভার আরবদেশগুলোকে নিতে হবে। তাদের জোরালো ভূমিকা না থাকায় ফিলিস্তিনিদের স্বাধীনতা সংগ্রাম সফল হচ্ছে না।

এ সপ্তাহ জুমার নামাজে ৫০ হাজারের বেশি মুসল্লি মসজিদুল আকসায় জুমার নামাজে অংশগ্রহণ করেন। নামাজে আগত মুসল্লিদের আলকুদস শহরের বিভিন্ন পয়েন্টে ইসরায়েলি বাহিনী তল্লাশি চালায়।

জুমার খুতবায় শাইখ মোহাম্মদ হুসাইন ফিলিস্তিনসহ বিশ্বের সব মুসলিমকে ঐক্যের ব্যাপারে গুরুত্বারোপ করে বলেন, আমরা সকলেই এক ধর্মের অনুসারী, আমরা এক পিতার সন্তান। ঐক্যের কথা শুধু কথায় নয়, কাজে বাস্তবায়ন করতে হবে।

Spread the love
  • 632
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    632
    Shares

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।