অপদার্থ মোদীর দু’বেলা ফেসিয়াল করা নিয়ে লজ্জিত: দোলা সেন!

0

কলকাতা প্রতিনিধি:

লোকসভা নির্বাচনের আগে জমে উঠেছে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের প্রচার। সেই প্রচারের অঙ্গ হিসেবে বিশেষ জায়গা করে নিয়েছে পারস্পরিক আক্রমণ। তেমনই এক ঘটনার সাক্ষী থাকল উত্তর ২৪ পরগনার কাঁচরাপাড়া।

রবিবার মুকুল রায়ের খাসতালুকে সভা করে তৃণমূল কংগ্রেস। ১৯ জানুয়ারি ব্রিগেড সমাবেশের জন্য আয়োজিত সেই সভার প্রধান বক্তা ছিলেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ দোলা সেন।

সভায় বক্তব্য রাখতে উঠে কড়া ভাষায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করেন রাজ্যসভার সাংসদ দোলা। তিনি বলেন, “মোদীর মত অপদার্থ প্রধানমন্ত্রীর জন্য লজ্জিত আমরা।” নিজের এই বক্তব্যকে জোরালো করতে তিনি আরও বলেন, “যে দেশের ৭০% মানুষ পেট ভরে খেতে পায় না, যে দেশের অধিকাংশ মানুষ দারিদ্র সীমার নীচে বসবাস করে, সেই দেশের প্রধানমন্ত্রী দু’বেলা ফেসিয়াল করে, দিনে ৪ বার পোশাক পরিবর্তন করে। ১০ লক্ষ টাকা দামের স্যুট পরে, সেই স্যুট নিলামে বিক্রী করে। সাড়ে ৪ বছর ধরে যে প্রধানমন্ত্রীর আসনে বসে আছে, ভারতের মত ঐতিহ্যশালী দেশের সেই অপদার্থ প্রধানমন্ত্রী মোদীবাবুর জন্য লজ্জায় আমাদের মাথা নুইয়ে আসে।”

মোদীকে আক্রমণের পাশাপাশি দলনেত্রী তথা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে প্রশংসায় ভরিয়ে দিয়েছেন সাংসদ দোলা। তিনি বলেছেন, “আমাদের নেত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় যিনি সবসময় মানুষের পাশে থাকেন। তিনি বিমানে বিজনেস ক্লাসে চড়েন না, সাধারণ যাত্রীদের সঙ্গে যাতায়াত করেন। অতি সাধারণ জীবনযাপন করেন, তিনি সততার প্রতীক মমতা বন্দোপাধ্যায়। যিনি গত ১০০ বছরে জন্মায়নি, আগামী ১০০ বছরেও জন্মাবে না।”

কাঁচরাপাড়ার বাগমোড়ে দোলা সেন আরও জানিয়েছেন যে বিরোধীদল সিপিএম কংগ্রেস বিজেপি তাদের ঝুলি থেকে এরকম একজন মমতা বন্দোপাধ্যায় বের করে দেখাতে পারবে না। মমতা বন্দোপাধ্যায় উন্নয়নে এক নম্বর, মানুষের পাশে থাকায় এক নম্বর, যোগ্যতায় এক নম্বর এবং দূরদর্শিতায়ও এক নম্বর বলে দাবি করেছেন দোলা। তার কথায়, “সদ্য সমাপ্ত পাঁচ রাজ্যের নির্বাচনে বিজেপির ভরাডুবিতে নয়, তার অনেক আগে ২০১৮ সালে শহীদ দিবসের মঞ্চেই আমাদের নেত্রী ঘোষণা করেছিলেন বিভাজনের রাজনীতি হঠাও, দেশ বাঁচাও। বিজেপি হঠাও, দেশ বাঁচাও। মোদী হঠাও, দেশ বাঁচাও। তাই ২০১৯, পলিটিক্যালি বিজেপি ফিনিশ।”

এই ভাষাতেই উত্তর ২৪ পরগনার ব্রিগেডের প্রস্তুতি সভায় বিজেপিকে আক্রমণ করলেন রাজ্যসভার সাংসদ তথা আইএনটিটিইউসি সভানেত্রী দোলা সেন। দোলাদেবী এদিন নিজের বক্তব্যের শেষে সাংবাদিকদের আরও বলেন, ‘ইতিমধ্যেই বিজেপির বিরুদ্ধে মানুষ বার্তা দিতে শুরু করেছে। পাঁচ রাজ্যের সদ্য নির্বাচনের ফলাফলে তা দেখা গিয়েছে। ব্রিগেডের মঞ্চে অবিজেপি দলের নেতা নেত্রীদের সঙ্গে নিয়ে বিজেপি বিরোধী সেই বার্তাই সুসংহতভাবে দেবেন দলনেত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়। যে যে রাজ্যে বিজেপি বিরোধী শক্তি যতটা শক্তিশালী, তারা তাদের মত করে সর্বশক্তি দিয়ে বিজেপি বিরোধিতা করবে। ব্রিগেডের মঞ্চে সুসংহত ও ঐক্যবদ্ধভাবে বিজেপি বিরোধিতার বার্তাই দেওয়া হবে।’

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।