পোশাক শ্রমিকদের ৮ হাজার টাকা ন্যূনতম মজুরির গেজেট প্রকাশ

0

অর্থনীতি ডেস্ক:

৫১ শতাংশ বাড়িয়ে পোশাক শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরি ৮ হাজার টাকা নির্ধারণের গেজেট প্রকাশ করেছে সরকার। এই মজুরি আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে কার্যকর হবে। এর আগে ন্যূনতম মজুরির প্রজ্ঞাপন প্রকাশ করেছিল শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়।

গেজেট অনুযায়ী শ্রমিকদের জন্য ৭টি ও কর্মচারীদের জন্য ৪টি গ্রেড নির্ধারণ করা হয়েছে। শ্রমিকদের ৭ম গ্রেডে ন্যূনতম মজুরি নির্ধারণ করা হয়েছে ৮ হাজার টাকা। এর মধ্যে মূল মজুরি ৪ হাজার ১০০ টাকা, বাড়ি ভাড়া ২ হাজার ৫০ টাকা, চিকিৎসা ভাতা ৬০০ টাকা, যাতায়াত ভাতা ৩৫০ টাকা, খাদ্য ভাতা ৯০০ টাকা।

অপরদিকে প্রথম গ্রেডে মজুরি ১৭ হাজার ৫১০ টাকা।

শিক্ষানবিশ শ্রমিক মাসিক সর্বসাকুল্যে পাবেন ৫ হাজার ৯৭৫ টাকা। শিক্ষানবিশকাল হবে ৩ মাস।

পোশাক শিল্পের কর্মচারীদের চতুর্থ গ্রেডে ৮ হাজার ৩৭৫ টাকা ও প্রথম গ্রেডে ন্যূনতম মজুরি নির্ধারণ করা হয়েছে ১৪ হাজার ৭৫ টাকা। শিক্ষানবিশ কর্মচারী মাসিক সর্বসাকুল্যে পাবেন ৬ হাজার ১৬৪ টাকা। শিক্ষানবিশকাল হবে ৬ মাস।

পোশাক শ্রমিকরা দ্বিতীয় গ্রেডে ১৪ হাজার ৬৩০ টাকা, তৃতীয় গ্রেডে ৯ হাজার ৫৯০ টাকা, চতুর্থ গ্রেডে ৯ হাজার ২৪৫ টাকা, পঞ্চম গ্রেডে ৮ হাজার ৮৫৫ টাকা ও ষষ্ঠ গ্রেডে ৮ হাজার ৪০৫ টাকা পাবেন।

কর্মচারীরা দ্বিতীয় গ্রেডে ১১ হাজার ৩০০ টাকা ও তৃতীয় গ্রেডে ১০ হাজার ৭৭৫ টাকা ন্যূনতম মজুরি পাবেন।

তবে সব গ্রেডেই মূল মজুরি ও বাড়ি ভাড়া ভাতা ছাড়াও ন্যূনতম মোট মজুরির মধ্যে ৬০০ টাকা চিকিৎসা ভাতা, ৩৫০ টাকা যাতায়াত ভাতা ও ৯০০ টাকা খাদ্য ভাতা অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

গেজেটে বলা হয়েছে, ন্যূনতম মজুরির কোন শ্রমিককে এই ন্যূনতম মজুরির চেয়ে কম মজুরি দেয়া যাবে না। তবে বর্তমানে যদি কোনো শ্রমিক এই মজুরির চেয়ে বেশি হারে মজুরি পেয়ে থাকেন, তা কমানোও যাবে না।

শ্রমিকরা প্রতি বছর মূল মজুরির ৫ শতাংশ হারে মজুরি বৃদ্ধির সুবিধা পাবেন, মালিকরা এই সুবিধা দিতে বাধ্য থাকবে বলেও গেজেটে উল্লেখ করা হয়েছে।

পোশাক শ্রমিকদের আন্দোলনের মুখে গত ১৩ সেপ্টেম্বর ন্যূনতম মজুরি ৮ হাজার টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে বলে ঘোষণা দেন শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মুজিবুল হক। তবে তখন বিস্তারিত কিছু জানানো হয়নি।

Spread the love
  • 363
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    363
    Shares

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।