এসএসসির ফরম পূরণে বাড়তি ফি চাইলেই ১০৬-তে ফোন

0

সময় এখন ডেস্ক:

দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে স্কুলগুলোতে মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য সরকার নির্ধারিত নির্দিষ্ট ফির অতিরিক্ত অর্থ আদায়ের অভিযোগ রয়েছে। তবে এবার সে অবস্থার পরিবর্তন আনতে মাঠে নেমেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। এজন্য দুদকের হটলাইন নাম্বার ১০৬-এ অভিযোগ করা যাবে বলে জানিয়েছে দুদক।

স্কুলগুলোর বাড়তি অর্থ আদায়ের বিরুদ্ধে মাঠে নেমেছে রাষ্ট্রীয় দুর্নীতি বিরোধী এ প্রতিষ্ঠানটি। চালানো হচ্ছে মাঠ পর্যায়ে অভিযান। দুদক হটলাইনে (১০৬) নেওয়া হচ্ছে অভিযোগ। অভিযোগ পাওয়ামাত্র টিম চলে যাচ্ছে অভিযোগ আসা স্কুলগুলোতে। স্কুল কমিটিকে বাধ্য করছেন সরকার নির্ধারিত ফি নিতে।

দুদকের মহাপরিচালক (প্রতিরোধ) সারোয়ার মাহমুদ এ বিষয়ে গণমাধ্যমকে জানান, ফরম পূরণে সরকার নির্ধারিত ফি’র অতিরিক্ত অর্থ নেওয়া সম্পূর্ণ অনৈতিক।

এ জাতীয় অপরাধ যাতে সংঘটিত না হয় এ বিষয়টি কমিশন নজরদারি করছে এবং জনগণকে সচেতন হওয়ার পরামর্শ দিচ্ছে। অভিযোগ পেলে এসব অপরাধ প্রতিরোধে দুদক নিয়মিত অভিযান চালাবে।

দুদকের হটলাইন: অভিযোগ করুন সরাসরি (টোল ফ্রি)

গত ২৬ জুলাই চালু হয়েছে ১০৬ নম্বরের ৩ ডিজিটের হটলাইন সেবা। এর ফলে বদলে গেছে দুর্নীতি দমন কমিশন দুদকের অভিযোগ দায়েরের প্রক্রিয়া। এ প্রক্রিয়ায় যেখানে যখনই দুর্নীতির ঘটনা ঘটবে, সেখান থেকে তখনই অভিযোগ করা যাবে এমন সুবিধা নিয়ে কমিশনে চালু হয়েছে কল-সেন্টার বা হটলাইন।

এই সেবায় কল-সেন্টার স্থাপনের কাজ দুদক চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদের সরাসরি তত্ত্বাবধানে শেষ হয়েছে। এই হটলাইনে চাইলেই দুর্নীতির শিকার যে কেউ মোবাইলে বা ফোনে অভিযোগ দিতে পারবেন। বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি) থেকে নেওয়া হয়েছে ৩ ডিজিটের এই হটলাইন নম্বর।

বাংলাদেশের যে কোনো প্রান্ত থেকে অভিযোগকারী ওই নম্বরে যে কোনো অপারেটর থেকে সার্ভিস চার্জ ছাড়াই ২৪ ঘণ্টা দুর্নীতিসংশ্লিষ্ট অপরাধের সরাসরি অভিযোগ করতে পারবেন। নিতে পারবেন সংশ্লিষ্ট বিষয়ে আইনি পরামর্শ।

টোল ফ্রি হটলাইন ১০৬ তে প্রতিদিন সকাল নয়টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত অভিযোগ জানানো যাবে। এ জন্য কোনো খরচ করতে হবে না কাউকে।

তথ্যদাতার পরিচয় গোপন থাকবে

দুদক থেকে অভিযোগ দায়ের করার বিষয়ে জানানো হয়েছে- এখানে অভিযোগকারী যে কোন মোবাইল ফোন থেকে ১০৬ এ ফোন করে তার অভিযোগ জানাতে পারবেন।

একাধিক ব্যক্তি একই সঙ্গে অভিযোগ জানাতে পারবেন। অভিযোগকারীর নাম ও পরিচয় গোপন রাখা হবে, অভিযোগকারী চাইলে তার বক্তব্য রেকর্ড করা যাবে।

হটলাইনের সুবিধা সম্পর্কে দুদক থেকে জানানো হয়েছে, জনগণের সঙ্গে দুর্নীতি দমন কমিশনের প্রত্যক্ষ সংযোগ স্থাপন, দ্রুত দুর্নীতির তথ্য, প্রমাণ প্রাপ্তি, দুর্নীতির ঘটনা ঘটার সাথে সাথেই অথবা ঘটার সম্ভাবনা রয়েছে এমন অভিযোগ পেলে তাৎক্ষনিক প্রতিকার বা প্রতিরোধের ব্যবস্থা নেওয়া যাবে।

দুর্নীতির ঘটনা ঘটার আগেই প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা নেওয়া যেতে পারে, দুর্নীতির বিরুদ্ধে জনমত সৃষ্টি এবং কমিশনের প্রতি জনআস্থা সৃষ্টি ইত্যাদি।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.com-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।